মঙ্গলবার, ১৬ জুলাই ২০২৪, ০৯:০৭ অপরাহ্ন

ভালুকায় সৃজিত চারা উপড়িয়ে বনভূমি জবরদখলের অভিযোগ

Reporter Name / ১২ Time View
Update : মঙ্গলবার, ১৬ জুলাই ২০২৪, ০৯:০৭ অপরাহ্ন
ভালুকায় সৃজিত চারা উপড়িয়ে বনভূমি জবরদখলের অভিযোগ

ভালুকা প্রতিনিধি:- ময়মনসিংহের ভালুকা রেঞ্জের হবিরবাড়ী বিটের অধীনে ধামশুর মৌজার ৯৭৮ দাগে বনবিভাগের সৃজিত বাগানের ৪ হাজার চারা উপড়িয়ে কয়েক কোটি টাকা মূল্যের উদ্ধার হওয়া বনভূমি পুনরায় জবরদখলের পায়তারা করার অভিযোগ উঠেছে।

বনবিভাগ সুত্রে জানা যায়, ধামশুর মৌজার ৯৭৮ দাগে মোট ভূমি ১১.৫৪ একর এর মধ্যে বনভূমি ৮.৬০ একর। ৪ একর বন ভূমি শামীম আহমেদ দীর্ঘদিন যাবৎ জবর দখল করে রেখেছিল। জবর দখলকৃত কয়েক কোটি টাকা মূল্যের বনভূমি উদ্ধার করে চারা রোপণ করে বনবিভাগ। (২৪ আগস্ট) রাতে উক্ত জমি থেকে বন বিভাগের রোপণ কৃত ৪ হাজার আকাশ মনি চারা উপরে ফেলা হয়। ২৫ আগস্ট শুক্রবার সকাল থেকে হবিরবাড়ী বিট অফিসার মোঃ আশরাফুল আলম খানের নেতৃত্বে পূণরায় ঐ জমিতে চারা রোপণ কাজ শুরু করে বন বিভাগ। এর আগে গত ২৫জুন উক্ত বনভূমিতে চারা রোপণ করেছিলো বনবিভাগ।

এ নিয়ে উক্ত জমিতে তৃতীয়বার বন বিভাগ চারা রোপণ করলো। রোপণ কৃত চারা উপরে ফেলার বিষয়টি অস্বীকার করে শামীম আহমেদ বলেন, আমি বনের জমি দখল করি নাই। আমার সত্য জমি বন বিভাগ শুধুমাত্র চয়েস লিষ্ট এর বলে অন্যায় ভাবে দাবী করে আমাকে হয়রানী করছে। তিনি বলেন, আমি বন বিভাগের বিরুদ্ধে বিজ্ঞ আদালতে নিষেদাজ্ঞা দাবী করলে বিজ্ঞ আদালত আমার পক্ষে অস্থায়ী নিষেদাজ্ঞা প্রদান করেন। শুক্রবার দুপুরে ময়মনসিংহ বিভাগীয় বন কর্মকর্তা আ.ন.ম আব্দুল ওয়াদুদ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। এসময় তিনি জবর দখল কারীদের বিরুদ্ধে আইনি পদক্ষেপ নেওয়ার জন্য ভালুকা রেঞ্জ ও বিট অফিসারকে নির্দেশ প্রদান করেন।

এসময় এক প্রশেśর জবাবে তিনি বলেন, জবর দখল কারীরা যত শুক্তিশালীই হোক তাদের দখল থেকে সরকারী সম্পত্তি আইনি প্রক্রিয়ার মাধ্যমে উদ্ধার করা হবে। জারা বন বিভাগের রোপণ কৃত চারা উপরে ফেলে সরকারী বন ভূমি জবর দখলের পায়তারা করছে তাদের বিরুদ্ধে অবশ্যই আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।


এই ক্যাটাগরি আরও পড়ুন

তারিখ অনুসারে পুরাতন খবর

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২
১৩১৪১৫১৬১৭১৮১৯
২০২১২২২৩২৪২৫২৬
২৭২৮২৯৩০৩১  
এক ক্লিকে বিভাগের খবর