শনিবার, ১৩ জুলাই ২০২৪, ১২:০২ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম
শিরোনাম
লাবিবের না ফেরার দেশে বুক ফাটা আহাজারি বাবা-মা পত্নীতলায় মারা গেল সাপের কামড়ে এক শিশু শিবপুরে আলিম পরীক্ষার কেন্দ্র পরিদর্শন করলেন শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব -শাহনেয়াজ দিলরুবা খান ভালুকায় পৃথক অভিযানে সংঘবদ্ধ চোর চক্রের ৪ সদস্য আটক ভালুকায় আঁশমুক্ত ও সুমিষ্ট আম্রপলি আম বাণিজ্যিক ভাবে চাষে কামালের ভাগ্য বদল নওগাঁয় বিস্কুট খেয়ে দুই শিশুর মৃত্যুর অভিযোগ! শিবপুরে কিশোর গ্যাং কুপিয়ে হত্যা করলো সবজি বিক্রেতা কে ভালুকায় আবারো ৮ শিক্ষার্থী ও এক শিক্ষককে বহিষ্কার মধুপুর প্রেসক্লাবের নতুন কার্যকরী কমিটি গঠন সপ্তাহে দেড় দিন এবং রাত ৮টার পর বন্ধ থাকবে সব দোকানপাট

দেশে-বিদেশে অনেক চক্রান্ত চলছে, ভোটের পরিবেশ সুন্দর রাখতে হবে: নেতাকর্মীদের শেখ হাসিনা

Reporter Name / ১০ Time View
Update : শনিবার, ১৩ জুলাই ২০২৪, ১২:০২ পূর্বাহ্ন

স্টাফ রিপোর্টার:

বাংলাদেশের আসন্ন দ্বাদশ জাতীয় নির্বাচন ঘিরে জাতীয় ও আন্তর্জাতিকভাবে অনেক চক্রান্ত হচ্ছে উল্লেখ করে নির্বাচনী তথা ভোটের পরিবেশ সুন্দর রাখতে নেতাকর্মীদের নির্দেশনা দিয়েছেন আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনা।

২৮ ডিসেম্বর বৃহস্পতিবার বিকেলে ছয়টি জেলায় আওয়ামী লীগের নির্বাচনী জনসভায় যুক্ত হয়ে তিনি এ নির্দেশনা দেন। তেজগাঁওয়ে ঢাকা জেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয় থেকে এসব জেলার সঙ্গে জনসভায় ভার্চুয়ালি যুক্ত হন তিনি।

এদিন ময়মনসিংহ বিভাগের জামালপুর ও শেরপুর জেলা, ঢাকা বিভাগের কিশোরগঞ্জ ও নরসিংদী জেলা এবং চট্টগ্রাম বিভাগের চাঁদপুর ও বান্দরবান জেলায় আওয়ামী লীগের এই নির্বাচনী ভার্চুয়ালি জনসভা অনুষ্ঠিত হয়।

এসময় আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনা বলেন, একমাত্র আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় এলেই দেশের উন্নয়ন অব্যাহত রাখতে পারবে। এবারের নির্বাচন নিয়ে জাতীয় ও আন্তর্জাতিকভাবে অনেক চক্রান্ত হচ্ছে। তাই নির্বাচনী পরিবেশটা যেন সুন্দর থাকে, নির্বাচন যেন উৎসবমুখর ও প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ হয়, সেদিকে সবাই খেয়াল রাখবেন। বিএনপি সন্ত্রাসী, জামায়াত যুদ্ধপরাধীদের দল। এরা নির্বাচনে না এলে ভোট অংশগ্রহণমূলক হবে না, এটা আমরা বিশ্বাস করি না।

তিনি বলেন, বিএনপি-জামায়াতের কাজই মানুষ পোড়ানো আর ধ্বংস করা। নির্বাচিত সরকার, গণতান্ত্রিক সরকার ধারাবাহিকভাবে ২০০৮ সাল থেকে ২০২৩ সাল পর্যন্ত আছে বলেই দেশ উন্নত হয়েছে। আগে যারা ক্ষমতায় ছিল, তারা তো এক কদমও এগোতে পারেনি। তারা দেশকে পিছিয়ে দিয়েছিল।

দলের নেতাকর্মীদের উদ্দেশে আওয়ামী লীগ সভাপতি বলেন, ভোটারদের অংশগ্রহণেই নির্বাচন অংশগ্রহণমূলক হয়ে যাবে। ওই সন্ত্রাসীদের দল তো নির্বাচনে বিশ্বাসই করে না। তাদের দ্বারা কোনো কল্যাণ হবে না দেশে। সেজন্য উন্মুক্ত নির্বাচন করতে দিয়েছি। শান্তিপূর্ণ পরিবেশ বজায় রাখবেন। জনগণ যাকে চাইবে, তাকেই মেনে নেবেন সবাই।

এসময় দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন সামনে রেখে আওয়ামী লীগের নির্বাচনী ইশতেহার সব প্রার্থীকে পড়ে নেওয়ার নির্দেশনা দেন দলের প্রধান। তিনি বলেন, নির্বাচনী ইশতেহার পড়ে নেবেন এবং সে অনুযায়ী ভোট চাইবেন।

শেখ হাসিনা বলেন, ‘৭৫ এর পর অবৈধ ক্ষমতা বৈধ করার জন্য জনগণের অধিকার কেড়ে নেওয়ার সংস্কৃতি চালু করেছিল জিয়াউর রহমান। তখন স্বাধীনতাবিরোধীদের সমন্বয়ে মুক্তিযুদ্ধের বিপরীত ধারায় চলতে থাকে দেশ।

তিনি বলেন, ২০০১ সালে গ্যাস বিক্রির চক্রান্ত করে ক্ষমতায় এসে মানুষের ভাগ্য নিয়ে ছিনিমিনি খেলে বিএনপি। তারা এখনো নির্বাচনবিরোধী কাজ করে চলেছে। ট্রেনে আগুন দিয়ে মা-শিশুকে এমনভাবে পুড়িয়ে হত্যা সহ্য করা যায় না। এরা সবসময় নির্বাচন বানচালের তালে থাকে। কিন্তু নির্বাচিত সরকার ছাড়া দেশের মানুষের ভাগ্য পরিবর্তন করা সম্ভব হয় না, এটাই বাস্তবতা।

২০১৪ থেকে ২০১৮ সালে মানুষ ভোট দিয়ে আওয়ামী লীগকে সমর্থন করেছিল বলেই দেশের উন্নয়ন সম্ভব হচ্ছে বলে জানান শেখ হাসিনা।

ভোটারদের উদ্দেশে তিনি বলেন, নৌকা মার্কায় ভোট দিয়ে আওয়ামী লীগকে জয়যুক্ত করে উন্নত-সমৃদ্ধ জীবনের ধারা অব্যাহত রাখুন, যেন দেশকে আরও এগিয়ে নেওয়া যায়। জনগণের ম্যান্ডেট নিয়ে আওয়ামী লীগ আবারও মানুষের সেবা করার সুযোগ পাবে, সেটাই প্রত্যাশা।

তিনি বলেন, এবারের নির্বাচন নিয়ে অনেক চক্রান্ত-ষড়যন্ত্র আছে। বিএনপি-জামায়াতের কাজই হলো মানুষ পোড়ানো আর নির্বাচন ধ্বংস করা।

শেরপুর জেলার জনসভায় ভার্চুয়ালি যুক্ত ছিলেন শেরপুর-২ (নকলা-নালিতাবাড়ী) আসনে নৌকার প্রার্থী ও সংসদ উপনেতা মতিয়া চৌধুরী এমপি, শেরপুর-১ (সদর) আসনে নৌকার প্রার্থী ও হুইপ বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব মো. আতিউর রহমান আতিক এমপি, শেরপুর-৩ (শ্রীবরদী-ঝিনাইগাতী) আসনে নৌকার প্রার্থী এ.ডি.এম শহিদুল ইসলাম, সাবেক সিনিয়র সচিব ও এসডিএফ’র চেয়ারম্যান মো. আব্দুস সামাদ ফারুক, শেরপুর জেলা আওয়ামী লীগ সিনিয়র সহসভাপতি ও সাবেক সাধারণ সম্পাদক এ্যাডভোকেট চন্দন কুমার পাল, আওয়ামী লীগের সংরক্ষিত আসনের সাবেক এমপি এডভোকেট ফাতেমাতুজ্জহুরা শ্যামলী, শেরপুর জেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক নাছরিন বেগম ফাতেমাসহ জেলা, উপজেলা, থানা, পৌর ও ইউনিয়ন, ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।


এই ক্যাটাগরি আরও পড়ুন

তারিখ অনুসারে পুরাতন খবর

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২
১৩১৪১৫১৬১৭১৮১৯
২০২১২২২৩২৪২৫২৬
২৭২৮২৯৩০৩১  
এক ক্লিকে বিভাগের খবর